• বৃহস্পতিবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:২৯ অপরাহ্ন
  • Bengali Bengali English English
নোটিশ :
* ২৬ মার্চ মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষে দেশবাসীকে বীরযোদ্ধা অনলাইন পত্রিকার পক্ষ থেকে জানাই প্রাণ ঢালা অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা * বিভিন্ন বিভাগ, জেলা ও উপজেলাতে অভিজ্ঞ সংবাদকর্মী  আবশ্যক। আগ্রহীদের নিম্নে ঠিকানায় যোগাযোগ করার জন্য জানানো যাচ্ছে।

হিরো আলমের ‘টোকাই’ ছবিতে নির্মাতা কাজী হায়াৎ

বীরযোদ্ধা / ১৫৫
প্রকাশিত : ২:০১ পিএম, (রবিবার) ৭ মার্চ ২০২১

বিনোদন প্রতিবেদন :

ঢালিউড কতটা বদলেছে, সেটি ধারণা করা যায় এমন শিরোনাম দেখে। দেশের প্রভাবশালী চলচ্চিত্র নির্মাতা কাজী হায়াৎ একটি ছোট্ট চরিত্রে অভিনয় করেছেন সময়ের সমালোচিত হিরো আলমের সিনেমায়!

কাজী হায়াতের সর্বশেষ ছবি ছিল শাকিব খানকে নিয়ে ‘বীর’ (২০২০)। এটি ছিল নির্মাতা হিসেবে তার ক্যারিয়ারের ৫০ নম্বর ছবি। ঢালিউডের সবচেয়ে অন্যতম সফল নির্মাতাও তিনি। এর আগে পরিচালনার পাশাপাশি টুকটাক অভিনয় করলেও সেটি যে হিরো আলম পর্যন্ত নামবে, তা অনুমান করতে পারেননি দর্শক ও চলচ্চিত্র সংশ্লিষ্টরা।

এখানেই হিরো আলমের চমক শেষ নয়। মুক্তি প্রতীক্ষিত ‘টোকাই’ ছবির মাধ্যমে বহুদিন পর পর্দায় ফিরছেন কাটপিস আমলের অন্যতম ‘অশ্লীল’ নায়ক মেহেদী।

মুকুল নেত্রবাদীর গল্পে ‘টোকাই’ নির্মাণ করেছেন বাবুল রেজা। বরাবরের মতোই ছবির প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছেন হিরো আলম।

ছবিটি প্রসঙ্গে হিরো আলম বেশ গর্ব নিয়েই বলেন, ‘এই ছবিতে কাজী হায়াৎ সাহেব, রেহেনা জলি, ড্যানি রাজ, দুলারী, রিনা খানের মতো শিল্পীরা অভিনয় করেছেন। গান গেয়েছেন মনির খান ভাইয়ের মতো জনপ্রিয় শিল্পী। চমক আরও আছে। আমার এই ছবির মাধ্যমে হিরো মেহেদী ভাই অভিনয়ে ফিরছেন। আমার গাওয়া একটি গানে ঠোঁট মেলাতেও দেখা যাবে তাকে।’

মেহেদী ১৯৯৩ সালে প্রখ্যাত চলচ্চিত্রকার আমজাদ হোসেনের ‘জন্ম থেকে জ্বলছি’ ছবি দিয়ে চলচ্চিত্রে পা রাখেন। এরপর ‘পাগল মন’ সিনেমার মাধ্যমে নায়ক হিসেবে প্রথম অভিষেক হয় তার। ভালো ছবি দিয়ে শুরু হলেও অশ্লীলতার দায়ে সমালোচিত হন। মুনমুন, ময়ূরী, ঝুমকার সঙ্গে বেশ কিছু বিতর্কিত ছবি করেছেন তিনি। সর্বশেষ ২০১৬ সালে তার ‘বুলেট বাবু’ চলচ্চিত্র মুক্তি পায়।

এদিকে হিরো আলমের দ্বিতীয় ছবি ‘টোকাই’ নিয়েও সমালোচনা শুরু হয়েছে। বিশেষ করে এতে কাজী হায়াতের মতো ব্যক্তিত্বের অভিনয় নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন অনেক দর্শক-সমালোচক।

বর্ষীয়ান এই নির্মাতা ও শিল্পীর কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘হিরো আলম তো কোনও জন্তু-জানোয়ার নয় যে তার ছবিতে অভিনয় করা যাবে না। অন্য আট-দশটা ছবির মতোই আমি বিষয়টি দেখি। আমার কাছে প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল। আমি কাজটি করেছি। এতে আমাকে নায়িকার বাবার চরিত্রে দেখা যাবে।’

হিরো আলম জানান, ‘টোকাই’ ছবিটির শুটিং শেষ হলো ৬ মার্চ। আগামী রোজার ঈদে ছবিটি দর্শকদের উপহার দিতে চান তিনি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর