• বৃহস্পতিবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:০১ অপরাহ্ন
  • Bengali Bengali English English
নোটিশ :
* ২৬ মার্চ মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষে দেশবাসীকে বীরযোদ্ধা অনলাইন পত্রিকার পক্ষ থেকে জানাই প্রাণ ঢালা অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা * বিভিন্ন বিভাগ, জেলা ও উপজেলাতে অভিজ্ঞ সংবাদকর্মী  আবশ্যক। আগ্রহীদের নিম্নে ঠিকানায় যোগাযোগ করার জন্য জানানো যাচ্ছে।

মুচিদের মানবেতর জীবনযাপন

বীরযোদ্ধা / ৫৭
প্রকাশিত : ৫:২৩ পিএম, (শনিবার) ৩১ জুলাই ২০২১

নাজমুল হোসাইন :

লকডাউনের বিধি নিষেধে মানবেতর জীবনযাপন করছেন শেরপুরের ঝিনাইগাতী উপজেলার মুচি সমাজ।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, উপজেলা সদর বাজারের মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে মেইন রোডের পশ্চিম পাশে ফুটপাথে মুচি শিপন, শান্ত, মছম রবিদাস, মিন্টু রবিদাস, শংকর ও সম্ভুরা বসে অলস সময় পার করছে। আগের মত আর কাস্টমার নেই। লকডাউনের কারণে কেউই জরুরী প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বের হচ্ছেনা। মানুষের ছুটোছুটি থাকলেও আসছে না কেউ জুতা-স্যান্ডেল সেলাই করতে। ফলে কাজের অভাবে আয় রোজগার কমে যাওয়ায় এসব নিম্ন আয়ের মানুষের দিন কাটছে অনাহারে অর্ধাহারে।

শনিবার দুপুরে বাজার ঘুরে দেখা যায়, ফুটপাথের ওপর বিছানো নিজ নিজ দোকানে চুপচাপ বসে আছে মুচিরা। কেমন আছেন? জিজ্ঞাসা করতেই তারা বলেন, আগে প্রতিদিন ৪ থেকে ৫শত টাকা আয় করতাম। লকডাউনের কারণে মানুষ আগের মতো জুতা-স্যান্ডেল, ব্যাগ সেলাই করতে আসছেনা। সে কারণে আমাদের আয় রোজগার খুবই খারাপ।

মুচি শিপন জানান, “সকাল ৭টায় আইছি। এখন বেলা ১২টা। বিকাল ৪ টায় আবার দোকান বন্ধ করতে হবে। জুতা-স্যান্ডেল সেলাই আর কালি করে যে সামান্য আয় হয় তা দিয়েই চলে আমাদের সংসার।

মুচিরা উপজেলার তারা রাংটিয়া পাহাড়ে ও বিভিন্ন পাড়া মহল্লায় বসবাস করলেও তাদের আয়ের আর কোনো উৎস নেই।

মুচি শান্ত জানায়, বাড়িতে তার মা-বাবা ও ২ ছেলে আছে। এই আয় দিয়েই সংসার চলে। সকাল ৭টায় থেকে দুপুর ১২ টা পর্যন্ত কাজ করেছেন মাত্র ৫০ টাকা।

বানুর বাড়িতে মা, স্ত্রী ও ২ সন্তান আছে। কাজ করেছেন মাত্র ৪০ টাকা। মচম রবিদাসের বাড়িতে স্ত্রী ও ৩ সন্তান আছে। কাজ করেছেন মাত্র ৪৫ টাকা। সিধু রবিদাসের স্ত্রীসহ বাড়িতে সদস্য আছেন ৬ জন। কাজ করেছেন মাত্র ৩০ টাকা। মিঠু দাসের পরিবারে সদস্য আছে ৬ জন। কাজ করেছেন মাত্র ৪০ টাকা। শংকর রবিদাসের স্ত্রী সহ ৬জন। কাজ করেছেন ৮০ টাকা। সম্ভু কাজ করেছেন মাত্র ১৫ টাকা।

কঠোর লকডাউনে কর্মহীন হয়ে পরা এই অসহায় দরিদ্র দিনমজুর মুচিদের খাদ্য সহায়তায় এগিয়ে আসবেন ঝিনাইগাতী উপজেলা প্রশাসন এটিই প্রত্যাশা তাদের।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর