• সোমবার, ২৫ অক্টোবর ২০২১, ১০:৪১ পূর্বাহ্ন
  • Bengali Bengali English English
নোটিশ :
* ২৬ মার্চ মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষে দেশবাসীকে বীরযোদ্ধা অনলাইন পত্রিকার পক্ষ থেকে জানাই প্রাণ ঢালা অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা * বিভিন্ন বিভাগ, জেলা ও উপজেলাতে অভিজ্ঞ সংবাদকর্মী  আবশ্যক। আগ্রহীদের নিম্নে ঠিকানায় যোগাযোগ করার জন্য জানানো যাচ্ছে।

বাঁশের বেড়া দিয়ে রাস্তা অবরোধ!

বীরযোদ্ধা / ৭৬
প্রকাশিত : ৩:৫২ পিএম, (শুক্রবার) ৩০ জুলাই ২০২১

বদলগাছী (নওগাঁ) প্রতিনিধি : 

বদলগাছীতে বাঁশের বেড়া দিয়ে রাস্তা বন্ধ করে রেখেছে এলাকার প্রভাবশালী পরিবার। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার মিঠাপুর ইউনিয়নের উত্তর মিঠাপুর কাঁঠালতলী নামক গ্রামে।

জানা যায়, পূর্ব শত্রুতার জের ধরে আমিনুর ইসলাম ওই পাড়ায় চলাচলের রাস্তায় বাঁশের বেড়া দিয়ে ঘিরে দিয়েছে। এতে অসহায় হয়ে পড়েছে ওই গ্রামের বাসিন্দারা। বাঁশের বেড়াগুলি রাস্তা থেকে দ্রুত সরিয়ে না নিলে যেকোনো সময় ঘটতে পারে বড়
ধরণের সংঘর্ষ।

এ ঘটনাটি ঘটিয়েছে আমিনুর ইসলাম ও তার আত্মীয়-স্বজন সুলতান হোসেন, বিদ্যুৎ হোসেন, রশিদুল ইসলাম ও হাসিদুল ইসলাম। তারা গ্রামের মানুষের চলাচলের এসব রাস্তা বাঁশ দিয়ে ঘিরে রেখেছেন।

গত ঈদুল ফিতর হতে ঈদুল আযহা পর্যন্ত ওই গ্রামের ৫০টি পরিবারের মাঝে মধ্যযুগীয় কায়দায় জিম্মি করে রেখেছে বলে জানা গেছে।

সরেজমিনে সাংবাদিকরা ঘটনাস্থলের ছবি তুলতে গেলে স্থানীয় দুই পক্ষের মধ্যে কথা-কাটাকাটি দৃশ্য দেখা গেছে।

ওই গ্রামের বাসিন্দা মিলন হোসেন, রেজাউল ইসলামসহ প্রায় শতাধিক ব্যক্তি বলেন, দীর্ঘদিন ধরে গ্রামের এই রাস্তা দিয়ে লোকজন চলাচল করে আসছে। কিন্তু হঠাৎ করে রশিদুল ইসলামকে সরকার থেকে একটি বাড়ি তৈরী করে দেওয়ার পর তাদের দাবি ভ্যান নিয়ে যাওয়ার রাস্তা দিতে হবে। ভ্যান চলাচলের রাস্তা না দিলে বিভিন্ন ভাবে মারপিটের হুমকি ধামকি দিয়ে আসছিলো। হঠাৎ ২/৩ মাস আগে বাঁশের বেড়া দিয়ে পুরো রাস্তা বন্ধ করে দেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শেখ হাসিনার উপহার হিসেবে একটি বাড়ী তৈরী করে দেওয়া হয়েছে এই গ্রামের রশিদুল ইসলামকে। সেই বাড়ীতে ভ্যান নিয়ে যাওয়ার গ্রামীণ রাস্তা না থাকায় ওই গ্রামের কয়েকটি অসহায় পরিবারকে গৃহবন্দি করে বাড়ি ভেঙ্গে রাস্তা তৈরী করার দাবি তাঁদের । তবে ওই বাড়ি থেকে বের হওয়া বিকল্প রাস্তা থাকলেও অসহায় এক ব্যক্তির বাড়ি ভেঙ্গে রাস্তা নেওয়ার দাবী ওই ব্যক্তিদের। তারা প্রভাবশালী হওয়ায় জোরপূর্বক বাড়ি ভেঙ্গে রাস্তা চায়। ওই প্রভাবশালীরা একটি ইটের বাড়ি ভেঙ্গে রাস্তা চাইলে রেজাউল, রাজ্জাক, ইউনুস, বাবলু বাড়ি ভেঙ্গে রাস্তা দিতে রাজি না হওয়ায় ওই বিরোধের সৃষ্টি হয়। এমতাবস্থায়, আমিনুর তার আত্মীয়-স্বজনদের সাথে নিয়ে গ্রামের সকল বাড়ির মূল দরজার সামনে বাঁশের বেড়া দিয়ে বন্ধ করে দিয়েছে। এই সমস্যার সমাধান না হলে যেকোনো সময় এখানে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের ঘটনা ঘটার আশঙ্কা রয়েছে।

রশিদুল ইসলাম বলেন , সরকার থেকে আমাকে একটি ইটের বাড়ি তৈরী করে দেওয়ার পর ভ্যান নিয়ে আমার সরকারি বাড়িতে আসতে চাইলে আমাকে ভ্যান নিয়ে আসতে দেননি তারা। এই জন্য আমি আমার আত্মীয় স্বজনদের নিয়ে রাস্তা বন্ধ করে দিয়েছি। আমার বাড়ি থেকে অনেক কষ্ট করে কবরস্থানের ওপর দিয়ে যাতায়াত করছি। আমার বাড়ি থেকে ভ্যান নিয়ে যাতায়াতের রাস্তা দিলে সব বাঁশের বেড়া খুলে দেওয়া হবে ।

স্থানীয় মাতব্বর এমদাদুল হোসেন বলেন, গত রমজানের ঈদ থেকে কিছুু বাড়ির সদর দরজার সামনে বাঁশ দিয়ে বেড়া দিয়েছে আমিনুর ও তার সহযোগীরা। এমন কি কোনো ছোট বাচ্চারাও এক বাড়ি থেকে আরেক বাড়িতে যাওয়া-আসা করতে পারে না। ওই সমস্যা নিয়ে উভয় পক্ষের সাথে বহুবার মিটিং করেও কোনো সমাধান করা সম্ভব হয়নি। তারা মেম্বার-চেয়ারম্যানের কথাও মানে না।

তিনি আরও বলেন, দুই পক্ষ যেভাবে গালিগালাজ করে যেকোনো মূহুর্তে এখানে বড় ধরনের সংঘর্ষের আশঙ্কা রয়েছে।

গ্রামের অর্ধশতাধিক ব্যক্তি বলেন, ত্রিশ বছরের বেশি সময় ধরে গ্রামের লোকজন এই রাস্তা দিয়ে যাতায়াত করে আসছে। ইটের বাড়ি ভেঙ্গে রাস্তা দিতে রাজি না হওয়ায় বাঁশ দিয়ে অসহায় পরিবার গুলোকে গৃহবন্দি করে রেখেছে। আতাউর রহমান , আমিনুর রহমান ও রশিদুল ইসলাম পরিকল্পিত ভাবে এই অশান্তি সৃষ্টি করেছেন। ভুক্তভোগীরা গ্রামের অসহায় মানুষ আর আমিনুর ও সহযোগিরা প্রভাবশালী। তাই প্রশাসনের হস্তক্ষেপ ছাড়া এই সমস্যা সমাধান হবে না। ওই সমস্যা সমাধানে ওই এলাকার গ্রাম্য মাতব্বর ও সাধারণ লোকজন প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছেন।

মিঠাপুর ইউপি চেয়ারম্যান ফিরোজ হোসেন বলেন, আমিনুর ও তার সহযোগীরা কাউকেই মানেন না। তাই স্থানীয়ভাবে সমস্যা সমাধান করা সম্ভব হয়নি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর